আপনি কি বুদ্ধিমান?! দেখে নিন, আই কিউ (IQ) টেস্ট করে

কাউকে ‘বুদ্ধিমান’ বলাটা কারো জীবনের সবচেয়ে বড় কম্পলিমেন্ট হয়ে থাকে। যাদের বুদ্ধি অসাধারণ তাদের আমরা বুদ্ধিমান বলে থাকি, তাই না?

বুদ্ধিমান হওয়াটা যেমন একদিক থেকে প্রশংসনীয় তেমনি অন্যদিক থেকে বুদ্ধিমান হলে কিন্তু ছোটোখাটো কোনো ভুল হলেই আপনাকে বেশ বড়সড় মাশুল গুণতে হয়।

যাই হোক!

বুদ্ধিমান ব্যক্তিকে আমরা ‘ইন্টেলিজেন্ট’ বলতে পারি আর তাহলে বুদ্ধি শব্দের মানে ‘ইন্টেলিজেন্স।’

বিভিন্ন বিজ্ঞানীরা বিভিন্ন ধরণের ইন্টেলিজেন্স সম্পর্কে বলেছেন। যার মানে দাঁড়াচ্ছে যে, আপনি শুধুমাত্র একটা বুদ্ধির ক্যাটাগরিতেই পড়েন না।

অর্থাৎ বুদ্ধির কিংবা ইন্টেলিজেন্সেরও ভিন্ন ভিন্ন ক্যাটাগরি রয়েছে। এসব বুদ্ধির ক্যাটাগরির মধ্যে ‘ক্যাটল-হর্নস ইন্টেলিজেন্স’ ক্যাটাগরি ও ‘গার্ডনারস ইন্টেলিজেন্স’ ক্যাটাগরি খুব বেশিই খ্যাত!

যেহেতু ‘ক্যাটল-হর্নস ইন্টেলিজেন্স’ ক্যাটাগরির চেয়ে, ‘গার্ডনারস ইন্টেলিজেন্স’ ক্যাটাগরি বেশি প্রতিষ্ঠিত সেহেতু আমরা এই ভিডিওতে এই ক্যাটাগরির ভিত্তিতেই দেখবো,

“আসলে আপনি কোন ক্যাটাগরিতে পড়েন! অর্থাৎ আপনি কোন ক্যাটাগরির ইন্টেলিজেন্ট?”

লজিক্যাল এন্ড ম্যাথমেটিকাল ইন্টেলিজেন্স

এই ক্যাটাগরিতে অন্তর্ভুক্ত বুদ্ধিমান ব্যক্তিরা মূলত গাণিতিক সমস্যা নিয়ে কাজ করে থাকেন। আপনি যদি গাণিতিক সমস্যাগুলো নিয়ে কাজ করতে পছন্দ করেন ও গাণিতিক সমস্যা সমাধান করা কিংবা নাম্বার বিয়ে খেলতে যদি আপনি পছন্দ করেন তাহলে ‘কংগ্র্যাচুলেশন্স!’ আপনি এই ক্যাটাগরিতেই পড়েন।

আবার, আপনি যদি নিত্যনতুন সমস্যা ও এর সমাধানগুলোকে নিয়ে কাজ করাটা উপভোগ করেন তাহলেও আপনি কিন্তু এই ক্যাটাগরিতেই পড়েন। যুক্তি, স্ট্র‍্যাটেজিক গেইম, সমস্যা সমাধান, পাজল, মিস্টেরি সলভ করায় যদি কারো আগ্রহ থাকে তাহলে তারা এই ক্যাটাগরিতে পড়েন।

লজিক্যাল এন্ড ম্যাথমেটিকাল ইন্টেলিজেন্স ক্যাটাগরিতে যারা বুদ্ধিমান, তারা মূলত ভবিষ্যতে বিজ্ঞানী, গণিতবিদ, ডিটেকটিভ, জার্নালিস্ট, ইনভেস্টিগেটরের মতো ক্যারিয়ার চয়েসগুলোতে যুক্ত থাকেন।

লিংগুইস্টিক ইন্টেলিজেন্স

এই ক্যাটাগরিতে অন্তর্ভুক্ত বুদ্ধিমান ব্যক্তিরা মূলত তিনটির বেশি ভাষায়, দক্ষ হয়ে থাকেন। কোন জায়গায় কোন কথা বা ভাষা ব্যবহার করতে হবে – এ সম্পর্কে তারা ভালো জানেন!

আপনি যদি মানুষের সাথে সহজেই বিভিন্ন ভাষায় কমিউনিকেট করতে পারেন তাহলে আপনি এই ক্যাটাগরিতে পড়েন। যার ভোকাবুলারি অনেক স্ট্রং, যারা অনেক বেশি পড়তে পছন্দ করেন, বিভিন্ন ধরণের ওয়ার্ড গেম খেলতে যারা পছন্দ করেন কিংবা যারা খুব সহজেই নতুন ভাষা শিখে নিতে পারেন – তারা মূলত এই ক্যাটাগরির অন্তর্ভুক্ত।

লিংগুইস্টিক ইন্টেলিজেন্স ক্যাটাগরিতে যারা বুদ্ধিমান, তারা মূলত ভবিষ্যতে লেখক, গণিতবিদ, কবি, জার্নালিস্ট, পাবলিক স্পিকার, মোটিভেশনাল স্পিকারের মতো ক্যারিয়ার চয়েসগুলোতে যুক্ত থাকেন!

ভিজ্যুয়াল-স্পেশিয়াল ইন্টেলিজেন্স

এই ক্যাটাগরিতে অন্তর্ভুক্ত বুদ্ধিমান ব্যক্তিরা হয় অসাধারণভাবে পৃথিবীটা দেখে, নাহয় রোগের কারণে অন্যভাবে পৃথিবীকে দেখে।

অর্থাৎ এরা চাইলে, যেকোনো কিছুই তাদের ‘মন’ দিয়ে দেখতে পারে। এরা যেকোনো স্টোরিকে চোখের সামনে ভিজ্যুয়ালাইজ করতে পারে। এদের আবার থ্রিডি ইন্টেলিজেন্সও বলা হয়ে থাকে।

যেকোনো গল্প কিংবা ছবি, টুডিতে থাকলে কিংবা অদৃশ্য থাকলে অথবা লেখা থাকলে – তারা ‘থ্রিডিতে’ সেটাকে কল্পনা করে দেখে ফেলতে পারে। এমনকি অদৃশ্য অবস্থাতেই কোনো বস্তুর আকার আকৃতি দেখতে পারে এবং অস্বাভাবিকভাবেই ধারণা করে ফেলতে পারে। গ্রাফিক্যাল আর্ট করার ক্ষেত্রেও এদের দক্ষতা রয়েছে।

ভিজ্যুয়াল-স্পেশিয়াল ইন্টেলিজেন্স ক্যাটাগরিতে যারা বুদ্ধিমান, তারা মূলত ভবিষ্যতে ক্যারিয়ার চয়েস হিসেবে পেইন্টার, স্কালপচার, আর্কিটেক্ট, ডিজাইনারের মতো চয়েসগুলোকে বাছাই করে থাকেন।

ন্যাচারালিস্ট ইন্টেলিজেন্স

এই ক্যাটাগরিতে অন্তর্ভুক্ত বুদ্ধিমান ব্যক্তিরা প্রকৃতিকে দেখতে পছন্দ করে ও প্রকৃতির বিভিন্ন জীবন্ত অবস্থাকে পড়তে পারে।

আপনি যদি প্রকৃতি পছন্দ করেন, ট্র‍্যাভেল করতে পছন্দ করেন, যেকোনো প্রাণীর সাথে সহজে মিশে যেতে পারেন, পশুপাখি ও গাছপালার সাথে মিশে থাকতে পছন্দ করেন তাহলে অভিনন্দন! আপনি একজন ন্যাচারাল ইন্টেলিজেন্ট।

ন্যাচারালিস্ট ইন্টেলিজেন্স ক্যাটাগরিতে যারা বুদ্ধিমান, তারা মূলত ভবিষ্যতে বোটানিস্ট, বায়োলজিস্ট, অ্যাগ্রিকালচারিস্ট, ফরেস্ট রেঞ্জার, অ্যানিমেল কেয়ারের মতো ক্যারিয়ার অপশনগুলো চয়েস করে থাকেন।

মিউজিক্যাল ইন্টেলিজেন্স

এই ক্যাটাগরিতে অন্তর্ভুক্ত বুদ্ধিমান ব্যক্তিরা খুব ভালো গান গায় ও খুব সহজে যেকোনো সুর ধরতে পারে।

আপনি যদি সহজে যেকোনো শব্দ, সুর ও এর পিচ, রিদম ইত্যাদি ধরতে পারেন কিংবা গান গাইতে, লিখতে ও সুর করতে পছন্দ করেন তাহলে আপনি এই ক্যাটাগরিতে পড়েন। অথবা, একেবারে তীক্ষ্ণ শব্দ থেকে শুরু করে যেকোনো ধরণের শব্দই আপনি সহজে ধরতে পারেন, তাহলে আপনি এই ক্যাটাগরিতে পড়েন।

মিউজিক্যাল ইন্টেলিজেন্স ক্যাটাগরিতে যারা বুদ্ধিমান, তারা মূলত ভবিষ্যতে গায়ক, কম্পোজার, ভোকালিস্ট, সাউন্ড মিক্সারস, কন্ডাকটরস, সাউন্ড ইঞ্জিনিয়ারের মতো ক্যারিয়ার চয়েসগুলোতে যুক্ত থাকেন।

এক্সিটেনশিয়াল ইন্টেলিজেন্স

সহজ ভাষায় যারা ফিলোসফিক্যাল প্রশ্নের উত্তর নিয়ে গবেষণা করতে পছন্দ করেন ও সেসব সমস্যার সমাধান করতে পারেন তারাই এই ক্যাটাগরির বুদ্ধিমান ব্যক্তি!

অর্থাৎ, “আমাদের জীবনের লক্ষ্য কি?”, ” আমাদের বেঁচে থাকার উদ্দেশ্য কি?”, ” আমরা কীভাবে একটা সিরিয়াস প্রশ্নের উত্তর দিতে পারি?” ইত্যাদি রিয়েল লাইফ সমস্যা নিয়ে যারা ভাবেন, তারাই হচ্ছেন এক্সিটেনশিয়াল ইন্টেলিজেন্ট।

এক্সিটেনশিয়াল ইন্টেলিজেন্স ক্যাটাগরিতে যারা পড়েছেন, তারা মূলত সাইকোলজিস্ট, থিওলজিয়ান, ফিলোসফার, পলিটিশিয়ান, মোটিভেশান স্পিকারের মতো ক্যারিয়ার চয়েসগুলোতে যুক্ত থাকেন।

বডিলি-কাইনেস্থেটিক ইন্টেলিজেন্স

যারা মূলত অ্যাথলেটিক হয়ে থাকেন, স্পোর্টস্পম্যান হয়ে থাকেন, খেলাধুলায় খুব ভালো হয়ে থাকেন – তারাই মূলত এই ক্যাটাগরির বুদ্ধিমান।

ফিজিক্যালি স্ট্রং হলে, বডি ল্যাঙ্গুয়েজ ভালো হলে, ফিজিক্যাল কন্টাক্ট করতে কোনো সমস্যা না হলে এবং মেকানিকাল কাজে আগ্রহী হলে আপনি এই ক্যাটাগরিতে পড়েন।

বডিলি-কাইনেস্থেটিক ইন্টেলিজেন্স ক্যাটাগরিতে যারা বুদ্ধিমান, তারা মূলত অ্যাথলেট, ড্যান্সার, অ্যাক্রোব্যাট, স্টেজ পার্ফরমার, সার্জন, ক্র‍্যাফটসম্যানের মতো ক্যারিয়ার চয়েসগুলোতে যুক্ত থাকেন।

ইন্টারপার্সোনাল ইন্টেলিজেন্স

যারা ইমোশনালি একটিভ অর্থাৎ যাদের ইকিউ বা ইমোশনাল কোয়োশেন্ট অনেক ভালো তারা এই ক্যাটাগরির বুদ্ধিমান!

আপনি খুব সহজেই মানুষের সাথে মিশতে পারেন, অনেক ফ্রেন্ড রয়েছে আপনার, আপনি ইমোশনালি একটিভ ও আপনি যদি বিভিন্ন পারস্পেকশন থেকে একটা বিষয় নিয়ে ভাবতে পারেন, তাহলে আপনি এই ক্যাটাগরিতে পড়েন।

ইন্টারপার্সোনাল ইন্টেলিজেন্স ক্যাটাগরিতে যারা বুদ্ধিমান, তারা মূলত শিক্ষক, সোশ্যাল ওয়ার্কার, রাজনীতিবিদ ইত্যাদি পেশায় যুক্ত থাকেন।

ইন্ট্রাপারসোনাল ইন্টেলিজেন্স

নিজের সম্পর্কে সচেতন থাকাও এক ধরণের ইন্টেলিজেন্স।

আপনি যদি নিজেকে বুঝতে পারেন, নিজের ফিলিংস, নিজের ইমোশনকে কন্ট্রোল করতে পারেন এবং আপনি কি চাইছেন সেটা যদি আপনি শিউরিটি দিয়ে বলতে পারেন, তাহলে আপনি একজন ইন্ট্রাপারসোনাল ইন্টেলিজেন্ট।

এই ক্যাটাগরিতে যারা বুদ্ধিমান, তারা মূলত সাইকোলজিস্ট, ফিলোসফার, কাউন্সিলর ইত্যাদি পেশায় যুক্ত থাকেন।

এগুলো ছাড়াও আরো অনেক ধরণের ইন্টেলিজেন্স রয়েছে, যেগুলো অন্য কোনো আর্টিকেলে কথা বলবো!

যদি এই আর্টিকেলটা পড়ে মনে হয়, আপনি উপরের কোনো ক্যাটাগরিতেই পড়ছেন না – তাহলে মন খারাপ করার কিছু নেই।

আরো অনেক ধরণের ‘সাব ক্যাটাগরি’ রয়েছে। যেগুলোতেও আপনার স্থান হওয়ার সম্ভাবনা রয়েছে!

অনেকের ভেতরে প্রশ্ন জাগতে পারে, একইসাথে কি সবগুলো বা দু তিনটা ইন্টেলিজেন্স ক্যাটাগরিতে পড়া সম্ভব?

আজ্ঞে হ্যাঁ, সম্ভব!

তো, আপনি কোন ক্যাটাগরিতে পড়েন?

ড্রপ অ্যা কমেন্ট এন্ড লেম্মি নো!

থ্যাংক ইউ!

হ্যাঁ, যদি মনে হয় এই আর্টিকেলটি আপনাকে সাহায্য করেছে কিছু জানতে বা শিখতে – দ্যান হোয়াই নট গিভ অ্যা লাইক এন্ড শেয়ার উইথ ফ্রেন্ডস!

রাইট?

দ্যাটস অল!

স্টে পজিটিভ স্টে স্ট্রং

Leave a Comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *